জাতীয়রকমারিরাজনীতি

আক্কেলপুরে ইউএনও’র উপস্থিতে বন্ধ হলো বাল্যবিবাহ

আক্কেলপুর (জয়পুরহাট) প্রতিনিধি : জয়পুরহাটের আক্কেলপুর পৌর এলাকায় ষষ্ঠ শ্রেণির এক স্কুল ছাত্রীর বিয়ের আয়োজন প্রায় সম্পন্ন বিয়েটা সুধু বাঁকি। খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এস.এম হাবিবুল হাসান সেখানে হাজির হয়ে বন্ধ করে দেন ঐ ছাত্রীর বাল্যবিবাহ। গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় পৌর এলাকার কেশবপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে বরের সাত দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেন ইউএনও।

স্থানীয় ও উপজেলা প্রশাসন কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, পৌর এলকার ঐ ছাত্রীর বাবা অনেক আগেই মারা গেছেন, মা ও অন্যের সাথে বিয়ে হয়ে চলে গেছেন অন্যত্র। মেয়েটিকে তার খালা লানলপালন করেন এবং বিয়েও ঠিক করেছিলেন মেয়েটির জন্য।

বুধবার নওগাঁ জেলার বদলগাছী উপজেলার গর্ন্ধবপুর গ্রামের মৃত লয়েজ উদ্দীনের ছেলে ভ্যান চালক এরশাদের সাথে বিয়ের দিন তারিখ ঠিকঠাক করা হয়েছিল ঐ স্কুল ছাত্রীর। সময় মতো বিয়ে করতে এসেছিল বর। বিয়ের আয়োজনও সম্পন্ন। খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার এস.এম হাবিবুল হাসান বিয়ে বাড়িতে হাজির হয়ে বন্ধ করে দেন ঐ ছাত্রীর বাল্যবিবাহ।

ইউএনও এস এম হাবিবুল হাসান বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান পরিচালনা করে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় ঐ স্কুল ছাত্রীর বাড়িতে বিয়ের আয়োজন সম্পন্ন সুধু বিয়ে টা বাঁকি এসময় বরকে আটক করে সাত দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয় । তিনি আরো বলেন, বাল্যবিবাহ এটা একটি সামাজিক অভিশাপ এই অভিশাপ থেকে সমাজ কে মুক্ত করতে হবে। স্থানীয় জনপ্রতিনিধি সহ সুশীল সমাজ সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে।

চৈতন্য চ্যাটার্জী
আক্কেলপুর, জয়পুরহাট

0Shares

Comment here