অর্থনীতিজাতীয়প্রযুক্তি

আক্কেলপুরে নারী পুরুষের অসামাজিক কার্যকলাপের সময় তিন নারী সহ এক যুবক গ্রেফতার।

 

আক্কেলপুর(জয়পুরহাট) প্রতিনিধিঃ-

জয়পুরহাটের আক্কেলপুর উপজেলা পরিষদের সামনে এক বাড়িতে বিশেষ পুলিশি অভিযান চালিয়ে অসামাজিক কার্যকলাপের সময় তিনজন নারী ও এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

এলাকাবাসী ও থানা সূত্রে জানা গেছে, গত (৯-ডিসেম্বর) সোমবার রাত ১১ টায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আক্কেলপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ আবু ওবায়েদ এর নেতৃত্বে (এস,আই) মোঃ তাজুল ইসলাম,(এস,আই) আব্দুল আলীম, নজরুল ইসলাম, (এ,এস,আই) দুলাল, সঙ্গীয় ফোর্সসহ স্থানীয় পৌর ৪ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও গণমাধ্যম কর্মীদের সহযোগীতায় উপজেলা পরিষদের সামনে মোঃ দেলোয়ার মহুরির বাড়িতে অভিযান চালিয়ে অসামাজিক কার্যকলাপের সময় তার স্ত্রী মোছাঃ জুমি খাতুন সেবা (৪২), মোঃ এনামুলের স্ত্রী মোছাঃ পরী (২৩), মৃত আকতার হোসেনের স্ত্রী রিভা (৫৫) ও পৌর সদরের ঠাংঙ্গগাপুর গ্রামের মোঃ বাবুলুর ছেলে মোঃ রাসেল (১৪) কে গ্রেফতার করেছেন।

গ্রেফতারকৃত যুবক রাসেলের কাছে ঘটনার বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন আক্কেলপুর হাস্তাবসন্তপুর গ্রামের মুরগী ব্যবসায়ী মোঃ দুলাল হোসেনের ছেলে মোঃ সজল তার বন্ধু হয় এবং তারা দুজনে মিলে সেবার বাড়িতে দৈহিক চাহিদা মেটানোর জন্য আসলে প্রথমে তাদের কাছ থেকে ৮ শত টাকা নেওয়া হয়।

পরে তার বন্ধু সজল রুমে প্রবেশ করে কাজ শেরে বাইরে এসে তাকে ভেতরে যেতে বললে এমন সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে সজলসহ ঐ বাড়িতে থাকা কয়েকজন কপোত, কপোতিরা পালিয়ে গেলেও আমি সহ তিনজন মহিলা পুলিশের হাতে ধরা পরি। উপরোক্ত বিষয়ে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক অত্র এলাকার কয়েকজন গণমাধ্যম কর্মীদের জানান, এলাকার কিছু প্রভাবশালী জনপ্রতিনিধি ও রাজনিতিবীদদের ছত্রছাঁয়ায় দেলোয়ার মুহুরি ও তার বৌ সেবা মিলে দির্ঘদীন যাবৎ বিভিন্ন এলাকা থেকে ভাড়াটে পতিতাদের এনে রমরমা দেহ ব্যবসা চালিয়ে আসছিল। তাদের ভয়ে আমরা মুখ খুলতে পারতাম না। আক্কেলপুর থানা পুলিশের এই অভিযানে এলাকায় স্বস্তি ফিরে এলো এতে আমরা ভীষণ খুবই খুশি বলে তারা জানান। এ বিষয়ে আক্কেলপুর থানার (ওসি) মোঃ আবু ওবায়েদ জানান, গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ পূর্বক আদালতে প্রেরণ করা হবে এবং এ ধরনের অভিযান অব্যহত থাকবে।
——
চৈতন্য চ্যাটার্জী
আক্কেলপুর,জয়পুরহাট।

0Shares

Comment here